কক্সবাজার জেলায় এই প্রথম বারের মতো উদযাপিত হয়েছে বিশাল এক স্বেচ্ছাসেবীদের মিলন মেলা ২০১৯

Channel Cox.ComChannel Cox.Com
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ১০:৩১ AM, ১৪ জুলাই ২০১৯

কক্সবাজার জেলায়
“মানবিক সমাজ গড়ার লক্ষ্যে সকলে মোরা ঐক্য গড়ি”এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে প্রথমবার খুব ঝাকঝমক পূর্ন ভাবে উদযাপিত হয়েছে স্বেচ্ছাসেবী মিলন মেলা ২০১৯

কক্সবাজার জেলায় এই প্রথম বারের মতো উদযাপিত হয়েছে বিশাল এক স্বেচ্ছাসেবীদের মিলন মেলা ২০১৯
গতকাল জুমাবার ১২-০৭-২০১৯ ইং কক্সবাজার সংস্কৃতিক কেন্দ্রে এই মিলন মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
উক্ত মিলন মেলায় ককসবাজার জেলা থেকে ২৬ টি সংগঠন অংশ গ্রহণ করেন। তা হল:-

বৃহত্তর ঈদগাহ ব্লাড ডোনার’স সোসাইটি
ইসলামপুর ব্লাড ডোনার’স এন্ড জনকল্যাণ সোসাইটি
ইসলামাবাদ ব্লাড ডোনার’স সোসাইটি
কক্সবাজার ব্লাড ডোনেটিং ক্লাব
বাইশারী ব্লাড ডোনেটিং ক্লাব
ঈদগড় ব্লাড ডোনার্স ক্লাব
চেতনা ব্লাড ব্যাংক বাংলাদেশ
SAVE THE FUTURE
খুটাখালী ব্লাড কল্যাণ সোসাইটি
সেবা ব্লাড ডোনার’স সোসাইটি বাংলাদেশ
blood bank Chittagong
বমু-বিলছড়ি ধ্রবতারা রক্তদান সংগঠন
উখিয়া ব্লাড ডোনেশন ইউনিট
চকরিয়া ব্লাড ডোনার’স সোসাইটি
রক্তদানে প্রস্তুত বাংলাদেশ
আল-ছিদ্দিক ফাউন্ডেশন
সীতাকুণ্ড ব্লাড ডোনেট গ্রুপ
আলীকদম ব্লাড ব্যাংক
ইউনিটি ব্লাড ব্যাংক বাংলাদেশ,
ইসলামী কক্স সোসাইটি
ফাসিয়াখালী ইয়ুথ সোসাইটি
ঘুমধুম ব্লাড ডোনেটিং ক্লাব সংসদ
রামু ব্লাড ডোনার’স সোসাইটি
জীবন জাগরন ব্লাড ডোনার’স সোসাইটি
নতুন আফিস ব্লাড ডোনার’স সোসাইটি
ও স্বপ্নজ্বাল।
এতে আহবায়ক নুরুল আজিম মিন্টু ( IBDWS), নুর মোহাম্মদ ( KBWS), মামুনর রশিদ মিশুক ( BEBDS) কক্সবাজার প্রতিনিধিকে জানান, আমারা সকাল ৮:৩০মিনিট থেকে উপস্থিতি স্বাক্ষার শুরু করি, সকল সংগঠন উপস্থিত হওয়ার পর ৩৫০ মতো সদস্য নিয়ে আমরা সংস্কৃতিক কেন্দ্র থেকে এক বিশাল র‍্যালী শুরু করে শহরের কলাতলী সড়ক প্রদক্ষিণ করে। সবার হাতে লাল বেলুন দিয়ে পর্যটন নগরী কক্সবাজারের আসা সকল পর্যটকদের লাল বেলুনের মাধ্যমে স্বাগত জানানো হয়। র‍্যালীর স্রোগান ছিল “স্বেচ্ছাসেবী মিলন মেলা সফল হোক, রক্তদিন জিবন বাচাঁন, মনবতার জয় হোক। দুই সারিতে কলাতলী ডলফিন মোড় দিয়ে ঘুরে আবার সবাই হল রুমে ফিরে আসে। র‍্যালির মাঝ খানে গরমের কারণে মিলন মেলার উপদেষ্টা আব্দুল্লাহ আল মুরাদ কে ঠান্ডা পানি বিতরন করতে দেখা যায়।
আব্দুল্লাহ আল মুরাদের উপস্থাপনায় শুরু হয় আলোচনা সভা, একে একে সকল সোসাইটির এডমিনগন নিজেদের আনন্দের মতামত প্রকাশ করেন।
সবাইকে মানব কল্যাণ মূলক সেবা কাজ কে এগিয়ে নিতে বক্তব্য রাখেন মোহাম্মদ আবদুল হালিম (প্রতিষ্টাতা এডমিন কক্সবাজার ব্লাড ডোনেটিং ক্লাব), টিপু ভাই (ইন্সাস ব্লাড ব্যাংক সদর হাসপাতাল কক্সবাজার), জমির (উপদেষ্টা সেভ দ্য ফিউচার বাংলাদেশ), শ্রাবণ (এডমিন-কক্সবাজার ব্লাড ডোনেটিং ক্লাব), শাকির (প্রতিষ্ঠাতা স্বপ্নজাল), ওমর ফারুক
(সাধারণ সম্পাদক খুটাখালী ব্লাড কল্যাণ সোসাইটি)।
মাঝে মাঝে সবাই কে আনন্দ দেবার জন্যে রাখা হয় গানের আযোজন।
সকল সোসাইটি কে কক্সবাজার জেলার স্বেচ্ছাসেবী মিলন মেলা ২০১৯ ইং এর অংশগ্রহণ ও মানবসেবা এবং জনকল্যাণ মূলক কাজে ভূমিকা রাখায় অত্র মিলন মেলা উৎযাপন কমিটির পক্ষ থেকে “সম্মাননা স্বারক” প্রদান করা হয়।
সাথে সবচেয়ে বেশি সদস্য রেজি: করায় বৃহত্তর ঈদগাও ব্লাড ডোনার’স সোসাইটিকে ও “সম্মাননা স্বারক”প্রদান করা হয় এবং স্বেচ্ছাসেবী মিলন মেলা আয়োজনে অবদান রাখায় এবং জনকল্যাণ মূলক কাজে ভূমিকা রাখায় অত্র মিলন মেলা উৎযাপন কমিটির পক্ষ থেকে ১:- নুরুল আজিম (মিন্টু) , ২:-নুর মোহাম্মদ (নুর) , ৩:- মামুনুর রশিদ (মিশুক) সহ তিন জন কে “সম্মাননা স্বারক” প্রদান করা হয়।
সর্বশেষে কূপন ড্র দেওয়া হয়, মিলন মেলাতে আসা ছোট স্বেচ্ছাসেবী সদস্য ফাইরোজ কে দিয়ে একটা একটা করে ১নং থেকে ১৫নং পর্যন্ত কূপন তোলা হয় সবার সামনে চোখে কাপড় বেধে।সব কূপনে ছিলো নানা রকম পুরুস্কার যেমন–
১:-একটি মোবাইল সেট
২:-একটি দেয়াল ঘড়ি
৩:-একটি দেয়াল ঘড়ি
৪:-একটি কপি মগ
৫:-একটি চুপ বাটির সেট
৬:-একটি দেয়াল ঘড়ি
৭:-একটি কপি মগ
৮:-একটি বাংলাদেশের জার্সি
৯:-একটি বর্ষার ছাতা
১০:-একটি চুপ বাটির সেট
১১:-একটি বাংলাদেশের জার্সি
১২:-একটি দেয়াল ঘড়ি
১৩:-একটি বাংলাদেশের জার্সি
১৪:-একটি দেয়াল ঘড়ি
১৫:-একটি মোবাইল সেট।
প্রায় ৮ টার দিকে সবাইকে ধন্যবাদ জানিয়ে এবং একটা বিদায় গানের মাধ্যমে সেইদিনের অনুষ্টান সমাপ্ত ঘোষনা
করা হয়।

আপনার মতামত লিখুন :