লামার দুলাভাইয়ের নির্যাতনে শালিকার আত্মহত্যা

Channel Cox.ComChannel Cox.Com
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৭:৫০ PM, ৩০ অগাস্ট ২০১৯

মোঃ নাজমুল হুদা,লামা (বান্দরবান) প্রতিনিধিঃ বান্দরবানে লামার আজিজনগর ইউনিয়নের চাম্বি হেডম্যান পাড়ায় সৎ বোনের স্বামীর নির্যাতনে শালী বিষপানে আত্মহত্যা করেছে। গত ২৮ আগষ্ট বুধবার রাত ৮.০০ ঘটিকার সময় চাম্বি হেডম্যান পাড়ায় বসবাসকারী নিওজিং মার্মা(৩২) এর বাড়িতে লেখাপড়া করার সুবাদে সৎ বোন মা চং মার্মার বাড়িতে থাকত ক্ষিক্ষিংওয়াং (১৪)। ক্ষিক্ষিংওয়াং আজিজনগর চাম্বি উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির ছাত্রী। তাহার বাড়ি গজালিয়া কুলিক্কা পাড়ায়।

পিতা -মাতার আর্থিক অবস্থা অস্বচ্ছল ও যাতায়তের অসুবিধা বলে সৎ বোনের বাড়িতে থেকে লেখাপড়া করত সে। কে জানত সৎ বোনের স্বামী কাল হবে তার। সৎ বোনের স্বামীর কু- দৃষ্টি পড়ে ক্ষিক্ষিংওয়াং এর উপর।

সৎ বোনে বাড়িতে না থাকলে প্রায়ই তাকে নির্যাতন করত দুলাভাই। ঘটনার দিন রাত ৮ টার দিকে বড় বোন বাসায় না থাকায় ক্ষিক্ষিংকে কু- প্রস্তাব দিলে সে রেগে দুলাভাইকে বকাঝকা করে, দুলাভাই তাকে লাঠি দিয়ে আঘাত করে লাঠিভেঙ্গে গেলে বেল দ্বারা আঘাত করে শরীরের বিভিন্ন স্থানে।

ঐ রাতেই ক্ষিক্ষিং বিষপান করে। তাকে লোহাগাড়ার মা- মনি হাসপাতালে নিয়ে গেলে ডাঃ তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল হাসপাতালে প্রেরণ করে। সেখানে চিকিৎসা শেষে সে ২৯ আগষ্ট রাতে ১০.৩০ ঘটিকায় মারা যায়। হাসপাতাল থেকে পাড়া কারবারী অংমং কে মুটো ফোনে জানান, দুলাভাই নিওজিং এর সাথে যোগাযোগ করলে তাহার ফোন বন্ধ পাওয়া যায়।

সূত্রে জানা যায়, প্রায় দুলাভাই ক্ষিক্ষিং কে জালাতন করত, ৩ নং ওয়ার্ড় মহিলা মেম্বার শারমিন আক্তার বলেন মেয়েটি ভাল ছিল আমার মেয়ের সাথে পড়ত। পাড়া কারবারী অংমং বলেন, আমাকে হাসপাতাল থেকে ফোন করে, তারপর আমি বিস্তারিত জানতে পারলাম।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে লামা থানার অফিসার ইনচার্জ অপ্পেলা নাহা রাজু বলেন, আজিজনগর পুলিশ ক্যাম্প ইনচার্জ কামরুজ্জামান বিষয়টি আমাকে জানিয়েছেন, লাশ চট্টগ্রাম থেকে আানা হলে আইনী প্রক্রিয়া শেষে স্বজনদের হন্তান্তর করা হবে।

আপনার মতামত লিখুন :