ফাহাদ হত্যায় বুয়েট ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদকসহ আটক ৪

Jashim UddinJashim Uddin
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৪:৫৮ PM, ০৭ অক্টোবর ২০১৯

 

এ হত্যা প্রসঙ্গে পুলিশ জানায় ‘ঘটনাটি তদন্তে সকল সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কেউ দোষী সাব্যস্ত হলে, তার বিরুদ্ধে অবশ্যই ব্যবস্থা নেওয়া হবে’

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) শিবির সন্দেহে আবরার ফাহাদ নামে এক শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মেহেদি হাসান রাসেলসহ চারজনকে আটক করা হয়েছে।

আটককৃত অন্যান্যরা হলেন, শেরে বাংলা হল ইউনিটের ভাইস প্রেসিডেন্ট মুত্তাকিম ফুয়াদ, শাখা ছাত্রলীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক অনিক সরকার এবং ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক মেফতাহুল ইসলাম জিয়ন।

সোমবার (৭ অক্টোবর) তাদের আটক করা হয় বলে ঢাকা ট্রিবিউনকে নিশ্চিত করেছেন লালবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সোহরাব হোসাইন।

ঢাকা মেট্রোপলিটনের অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার কৃষ্ণপদ রায় বলেন, “প্রাথমিকভাবে মারধরই এ হত্যাকাণ্ডের কারণ বলে প্রমাণ পাওয়া গেছে।” রাসেল ও ফুয়াদকে পুলিশি হেফাজতে রাখা হয়েছে বলেও তিনি জানান।

তিনি আরও বলেন, “বিষয়টি তদন্তের সকল সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কেউ দোষী সাব্যস্ত হলে, তার বিরুদ্ধে অবশ্যই ব্যবস্থা নেওয়া হবে।”

এদিকে, রাত দুইটার পর থেকে হলটির কোনো সিসিটিভি ফুটেজ পাওয়া যাচ্ছে না বলেও পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

সোমবার দিবাগত রাতে রাজধানীর চকবাজারে অবস্থিত বুয়েটের শেরে বাংলা হলের দ্বিতীয় তলা থেকে আবরার ফাহাদ (২১) নামে ওই ছাত্রের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ফাহাদ তড়িৎ কৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী

আপনার মতামত লিখুন :