প্লান এনজিওতে নারী সহকর্মীকে ধর্ষণ চেষ্টার পরও চাকরিতে বহাল তবিয়তে ওই কর্মকর্তা

Channel Cox.ComChannel Cox.Com
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ১০:৫০ PM, ১২ জানুয়ারী ২০২০

এইচ কে রফিক উদ্দিন,উখিয়া::

চাকরিতে প্রকল্পের মেয়াদ বৃদ্ধির কথা বলে এক নারীকে দীর্ঘদিন ধরে ইভটিজিং, যৌন হয়রানী ও অনৈতিক প্রস্তাব দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে প্লান ইন্টারন্যাশনালের নারী লিপ্সু এক এনজিও কর্তার বিরুদ্ধে।

অভিযুক্ত ব্যাক্তি প্লান ইন্টারন্যাশনাল এনজিওতে শিশু সুরক্ষা বিষয়ক cbcp প্রকল্পের কো-অর্ডিনেটর মনিরুজ্জামান মনির বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে গত ২০১৯ সালের ৩০ ডিসেম্বর উখিয়া উপজেলার কুতুপালং এলাকায় অবস্থিত প্রকল্প অফিসে পালংখালী ইউনিয়নের বাসিন্দা যৌন হেনস্থার শিকার ঐ নারী কর্মি প্লান ইন্টারন্যাশনাল বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে। মেয়েটির পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ পাওয়ার পর এনজিও সংস্থা প্লান ইন্টারন্যাশনাল উক্ত কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অভিযোগ তদন্তে ৩ সদস্যের কমিটি গঠন করেছে।

উখিয়া উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মুজিবুল হক আজাদ ও বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশনের যুগ্ম সম্পাদক মাসুদ আমিন শাকিলসহ অারো অনেকে বলেন, মনিরুজ্জামান মনির একজন নারী লোভী চরিত্রহীন। পালংখালী এলাকার এনজিও সংস্থা প্লান ইন্টারন্যাশনালের ঐ নারী কর্মীর অভিযোগ সম্পর্কে আমরাও অবগত আছি, ঐ নারীকে চাকরির সুবাধে বিভিন্ন সুযোগের কথা বলে তার সঙ্গে ‘অবৈধ সম্পর্ক’ গড়ে তোলার চেষ্টা করে। পরে ওই নারী বারবার তার বসের কু-প্রস্তাবে রাজি না হলে, নানা অজুহাতের টালবাহানা করে চাকরিচ্যুত করে। এ ব্যাপারে ভুক্তভোগী মেয়েটি অভিযোগ দায়েরের পর মনিরুজ্জামান মনিরের বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি গঠন করেই দায় সেরেছে এনজিওটি। তড়িৎ ব্যবস্থা না নেওয়ায় এলাকায় ক্ষোভ বাড়ছে।

অভিযোগকারী নারী জানান, চাকরি নবায়নের প্রলোভন দেখিয়ে আমাকে বিভিন্ন সময় কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছিল সিনিয়র বস মনিরুজ্জামান মনির। তার দেওয়া অনৈতিক প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় আমাকে চাকরিচ্যুৎ করে এবং আমাকে কোন এনজিওতে চাকরি করতে দেবে না বলে হুমকি দেন তিনি। তিনি আমাকে বিভিন্ন সময়ে হোটেলে থাকার অফারও করেছে। কিন্ত সায় না দেওয়ায় আমার এ অবস্থা।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে এনজিও সংস্থা প্লান ইন্টারন্যাশনালের পরিচালক দেবাশ্বিষ বিশ্বাস বলেন, আমরা মেয়েটির অভিযোগ পেয়েছি, তার দেওয়া অভিযোগের ভিত্তিতে তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত টিমও গঠন করা হয়েছে। কমিটির তদন্ত সাপেক্ষে অভিযুক্ত ব্যক্তি দোষী প্রমানিত হলে প্লান ইন্টারন্যাশনালের নিয়ম অনুযায়ী তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। প্লান ইন্টারন্যাশনালের নিজস্ব নিয়মনীতি রয়েছে, সংস্থাটি অন্যায়কে প্রশ্রয় দেয়না।সংস্থাটি দীর্ঘদিন ধরে সুনামের সাথে কাজ করে যাচ্ছে। মেয়েটির অভিযোগ গুরুত্ব সহকারে আমরা নিয়েছি। এখানে কাউকে ছাড় দেওয়া হবেনা, এটা আপনারা নিশ্চিত থাকতে পারেন।

আপনার মতামত লিখুন :