ঈদ পর্যন্ত চকরিয়ায় মার্কেট বন্ধ ঘোষনা, দুই মাসের ভাড়া মওকুফ | সি কক্স নিউজ

Channel Cox.ComChannel Cox.Com
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৯:১৭ PM, ০৮ মে ২০২০

মোঃ নাজমুল সাঈদ চকরিয়া:

করোনার ভাইরাস সংক্রমণ বিস্তাররোধে কক্সবাজারের চকরিয়া পৌরশহরের মার্কেটসহ উপজেলার মার্কেটগুলো বন্ধের জন্য আনুষ্ঠানিক ভাবে ঘোষণা করেছেন ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ ও মার্কেট মালিকেরা। একইসঙ্গে দুইমাসের দোকান ভাড়া মওকুফ করারও সিদ্ধান্ত নেন মার্কেট মালিকেরা। আগামী ঈদ পর্যন্ত দেশের দুর্যোগময় পরিস্থিতিতে মার্কেটগুলো বন্ধের ঘোষণা হওয়ায় মানুষের মাঝে করোনা রোধে স্বস্তি ফিরে এসেছে। এ ছাড়াও মার্কেটের দোকান কর্মচারী ও দারোয়ানদের বেতন পৌরসভার পক্ষথেকে দেওয়া ছাড়াও দোকান শ্রমিক-কর্মচারীদের ঈদ উপহার দেওয়ার ঘোষণা দেন উপজেলা চেয়ারম্যান ফজলুল করিম সাঈদী ও পৌর মেয়র আলমগীর চৌধুরীর পক্ষ থেকে।

শুক্রবার (৮মে) বিকেলে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ফজলুল করিম সাঈদী, পৌরসভার মেয়র আলমগীর চৌধুরী, দুই ওয়ার্ডের কাউন্সিলর রেজাউল করিম ও মুজিবুল হক, ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি রেজাউল হক, ব্যবসায়ী নেতা ফোরকানুল ইসলাম চৌধুরী খোকা, আজিজুল হকসহ ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দের যৌথসভায় উপরোক্ত সিদ্ধান্ত নেওয়াসহ ঈদ পর্যন্ত মার্কেট সম্পূর্ণ ভাবে বন্ধ রাখার চূড়ান্ত ঘোষণা দেওয়া হয়। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সৈয়দ সামসুল তাবরীজের মাধ্যমে জেলা প্রশাসককে অবহিত করা হয়।

এদিকে, মার্কেট বন্ধের ব্যাপারে স্থানীয় বেশকিছু স্বেচ্ছাসেবী ও সামাজিক সংগঠন স্মারকলিপি প্রদান করেন উপজেলা প্রশাসনের কাছে। স্মারকলিপি প্রদানের ২৪ ঘণ্টা না পেরুতেই মার্কেট বন্ধের ঘোষণাসহ দোকানের দুইমাসের ভাড়া মওকুফ, শ্রমিক-কর্মচারীদের উপহার দেওয়া, নিরাপত্তাপ্রহরীদের বেতন দেওয়ার ঘোষণা আসে।

চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সৈয়দ সামসুল তাবরীজ মার্কেট বন্ধের বিষয়ে সত্যতা নিশ্চিত করে তিনি বলেন, আগামী ঈদের আগ পর্যন্ত চকরিয়ায় কোনো মার্কেট না খোলাসহ দুইমাসের দোকান ভাড়া মওকুফ ও দোকান কর্মচারীদের ঈদ উপহার এবং দারোয়ানের বেতন দেওয়ারও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে বলে তিনি জানান।

উল্লেখ্য,গত ৬ মে এ প্রতিবেদকের টাইম লাইন থেকে ভোর ৬ টার সময় চকরিয়ায় শপিংমল খুলে বিকিকিনি চলার লাইভ দেওয়ার পর প্রশাসনের দৃষ্টিগোচর হয়। সেই সাথে স্বাধীনমঞ্চ, ফিসফাইডার ও কর্মরত সাংবাদিকবৃন্দ মার্কেট খুলার বিষয়ে জোরালাে প্রতিবাদ জানিয়ে আসছেন।

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে দোকান খুলে বসায় তাৎক্ষণিক পুলিশের অ্যাকশান। পৌরশহরের দুলাল সেন্টারের অসংখ্য দোকান এবং পাশের সমবায় মার্কেটের ফটকের গ্রীলে তালা ঝুলিয়ে দিয়েছেন পুলিশ। অবশেষে ৮মে উপজেলা চেয়ারম্যান, পৌর মেয়র ও ব্যাবসায়ীক সমিতির নেতৃবৃন্দেরর সমন্ময়ে আনু্ষ্ঠানিকভাবে মার্কেট বন্ধ ঘোষনা দেন।

আপনার মতামত লিখুন :